রবিবার; ১৬ জুন, ২০২৪ খ্রি. Dashboard

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন দিন
সর্বশেষ :
হু হু করে বাড়ছে তিস্তার পানি, নদীপাড়ে আতঙ্ক কুড়িগ্রামের উলিপুরে নিরাপত্তা নিশ্চিতে ৩২টি সিসি ক্যামেরা বসালো পুলিশ ঈদুল আজহাকে সামনে রেখে কুড়িগ্রামে ব্যস্ত সময় পার করছেন কামারেরা কুড়িগ্রামে বিভিন্ন পশুর হাটে জেলা পুলিশের নিরাপত্তা জোরদার কুড়িগ্রামের চর রাজিবপুরে সরকারি বিতরণকৃত চাল জব্দ
16 December

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

পঞ্চগড়ে সড়ক প্রকল্পে অনিয়মের অভিযোগ পেয়েছে দুদক

প্রকাশিত: শুক্রবার; ২৪ মে, ২০২৪ খ্রি. - ০৯:১৩ পি.এম. | দেখেছেন: ১০৬ জন।

পঞ্চগড়ে সড়ক প্রকল্পে অনিয়মের অভিযোগ পেয়েছে দুদক

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

এ,কে,এম আসাদুজ্জামান রানা

পঞ্চগড় জেলা প্রতিনিধি:

 

 

পঞ্চগড়ে ১২ কোটি ৬৮ লাখ টাকা সড়ক নির্মাণে নিম্নমানের নির্মাণসামগ্রী ব্যবহারের অভিযোগ পেয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। বুধবার ১৫ মে ২০২৪ তারিখে পঞ্চগড়ের সদর উপজেলার হাফিজাবাদ ইউনিয়নে রাস্তা নির্মাণে নিম্নমানের নির্মাণসামগ্রী ব্যবহারের অভিযোগের প্রেক্ষিতে ঠাকুরগাঁওয়ের সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের দুর্নীতি দমন কমিশন এনফোর্সমেন্ট অভিযান পরিচালনা করে। 

 

অভিযান শেষে দুদক জানিয়েছে, প্রাথমিকভাবে অভিযোগে বর্ণিত রাস্তার নথিপত্র যাচাই করে দেখা গেছে যে ২০২০ সালের ২ সেপ্টেম্বর আরসিআইপি প্রকল্পের অর্থায়নে ১২.৬৮ কোটি টাকা ব্যয়ে পঞ্চগড় সদর উপজেলার জ্বালাসি মোড় থেকে হাড়িভাসা পর্যন্ত ১০.৫ কিলোমিটার রাস্তা সংস্কার কাজটি করা হয়েছে।

 

কিন্তু প্রকল্পটির মেয়াদ চলতি বছরের ৩০ এপ্রিলে শেষ হলেও নথিপত্র পর্যালোচনায় পরিলক্ষিত হয়, বর্তমানে কাজটির ৯০ শতাংশ শেষ হয়েছে। দুদক ঠাকুরগাঁও কার্যালয়ের উপ-পরিচালক তাহসিন মুনাবিল হক জানান, গত ১৫ মে দুদক ঠাকুরগাঁও থেকে মোঃ আজমির শরিফ মারজীর নেতৃত্বে একটি টিম অভিযোগ সংশ্লিষ্ট রাস্তাটির পরিদর্শন করে। এ সময় সড়ক বিভাগের একজন নিরপেক্ষ প্রকৌশলী টিমকে কারিগরি সহায়তা প্রদানের জন্য উপস্থিত ছিল।

 

টিম ল্যাব পরীক্ষার জন্য সংশ্লিষ্ট রাস্তার কয়েকটি স্থান থেকে নির্মাণ কাজের নমুনা সংগ্রহ করে। ল্যাব রিপোর্ট পাওয়ার পর বলা যাবে রাস্তাটিতে নিম্নমানের নির্মাণ সামগ্রী ব্যবহৃত হয়েছিল কিনা। তৎপ্রেক্ষিতে দুদক টিম কমিশন বরাবর বিস্তারিত প্রতিবেদন জমা দেবে। পঞ্চগড় এলজিইডির নির্বাহী প্রকৌশলী মো.মাহমুদ জামানের কাছে এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে তিনি শুধু বলেন, অভিযোগের প্রেক্ষিতে অভিযান পরিচালনা হয়েছে।

 

 

 

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন